• ঢাবি ছাত্রীর সঙ্গে দুর্ব্যবহারের প্রতিবাদে বাস আটক

    6dde5d826e8e903aaf0a825edee95149 5b018e5125ebd - ঢাবি ছাত্রীর সঙ্গে দুর্ব্যবহারের প্রতিবাদে বাস আটক

    পজিটিভ ডেস্কঃ

    ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রীর সঙ্গে দুর্ব্যবহারের অভিযোগে ট্রাস্ট পরিবহনের চারটি বাস আটকে থানায় দিয়েছেন শিক্ষার্থীরা। আজ রোববার দুপুরে শাহবাগ থেকে তাঁরা বাসগুলো আটক করেন।

    বিশ্ববিদ্যালয়ের ম্যানেজমেন্ট বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী রিফাতুল হক প্রথম আলোকে বলেন, গত বৃহস্পতিবার ফিন্যান্স বিভাগের স্নাতকোত্তর শ্রেণির এক ছাত্রী শাহবাগ থেকে ট্রাস্ট পরিবহনের বাসে চড়ে মিরপুর যাওয়ার সময় চালকের সহকারী তাঁর সঙ্গে দুর্ব্যবহার করেন। তিনি কারওয়ান বাজারে নেমে যেতে বাধ্য হন। বিষয়টি তাঁদের জানানোর পর তাঁরা ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদের শিক্ষার্থীরা মিলে বাসগুলো আটক করেন। তাঁদের জানানোর কারণ হিসেবে রিফাত বলেন, ‘ফেসবুকে গণপরিবহনে নিরাপত্তা, ধর্ষণ ও ইভ টিজিংয়ের বিরুদ্ধে আমাদের একটি গ্রুপ আছে। সেখান থেকেই আমরা প্রতিবাদ জানিয়েছি।’

    ওই শিক্ষার্থীদের অভিযোগ, শাহাবুদ্দিন নামে ট্রাস্ট পরিবহনের চালকের সহকারী ওই ছাত্রীকে উত্ত্যক্ত করেন। রোববার দুপুরের দিকে চারটি বাস আটকালেও পরিবহনের কারও পক্ষ থেকে সাড়া পাওয়া যাচ্ছিল না। পরে থানায় একটি বাস রেখে বাকিগুলো বিশ্ববিদ্যালয়ের মল চত্বরে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের কাছে লিখিত অভিযোগ করা হয়। পরে পরিবহনের পক্ষ থেকে দুজন কর্মকর্তা আসেন। কিন্তু অভিযুক্ত ব্যক্তিকে পুলিশের হাতে তুলে না দেওয়া পর্যন্ত শিক্ষার্থীরা বাস ছাড়তে রাজি হননি। পরে অন্য বাসগুলোও শাহবাগ থানায় নিয়ে যাওয়া হয়।

    শাহবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবুল হাসান বাস আটকের বিষয়টি স্বীকার করে বলেন, ‘ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন ছাত্রীকে ইভ টিজিং করার অভিযোগে চারটি বাস আটক করেছেন শিক্ষার্থীরা। প্রক্টর ওই ছাত্রীকে নিয়ে তাঁর কার্যালয়ে যেতে বলেছেন।’

    বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক এ কে এম গোলাম রব্বানী প্রথম আলোকে বলেন, ‘শিক্ষার্থীদের লিখিত অভিযোগ দিতে বলা হয়েছে। এভাবে বাস আটক কোনো সমাধান নয়। আমরা অফিশিয়ালি বিষয়টি দেখব।’